Home » স্পোর্টস ট্যুরিজম » হোটেল ব্যবসায়ী রোনালদো

হোটেল ব্যবসায়ী রোনালদো

Neimar

বিশ্বব্যাপী অন্তর্বাসের ব্র্যান্ড হিসেবে সিআর-৭ এর নাম প্রতিষ্ঠিত হয়ে গেছে। ফুটবলার রোনালদোর বাইরে এই নামটা বেশ পরিচিতি পেয়েছে বিশ্বব্যাপী। এবার নতুন ভুমিকায় দেখা যাবে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে। হোটেল ব্যবসায়ী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে নতুন প্রকল্প হাতে নিয়েছেন। মূলত: ফুটবল ক্যারিয়ার শেষ হওয়ার পর এই ব্যবসাতেই মনযোগ দেবেন তিনি। সেই পথটা তৈরি করে রাখতে ব্যবসার কাজটা শুরুই করে দিলেন এই পর্তুগিজ সুপারস্টার। আপাতত ব্যবসায়িক অভিজ্ঞতা বিনিময় শুরু করেছেন। তার প্রথম হোটেল হবে মাদেরিয়ায়। ক্রমেই এর তিনটি শাখা পর্তুগালের রাজধানী লিসবন, স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদ ও যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক সিটিতে স্থাপন করবেন।

রোনালদোর ক্যারিয়ারে সবচেয়ে বড় এই প্রকল্পে খরচ হবে ৫৪ মিলিয়ন পাউন্ড। সেই প্রকল্পের প্রথম ধাপে অভিজ্ঞতা বিনিময়ের জন্য বৃহস্পতিবার লিসবনে পেজেন্টানা হোটেলে যান তিনি। কেন ফুটবলের সঙ্গে এমন একটি প্রকল্প হাতে নিলেন তার ব্যাখ্যা রোনালদো নিজেই দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘আমার কাজ হচ্ছে ফুটবল খেলা। তবে জীবন সবসময় একইরকম থাকবে না। আমি এখন নিজেকে নতুন একটা প্রকল্পের দিকে মনযোগী করতে চাই। এখনো আমি তরুণ। তবে এই প্রকল্পটা আমার জন্য খুবই রোমাঞ্চকর। কারণ এখন আমাকে নিজের, পরিবারের ও ছেলের ভবিষ্যত নিয়ে ভাবতে হচ্ছে।’

Neimar2

রোনালদো প্রথম ধাপে ২০১৬ সালের গ্রীষ্মে মাদেরিয়ায় প্রথম হোটেলের যাত্রা শুরু করবেন। ওখানেই তার জন্মস্থান। স্পোর্টিং লিসবনে খুব ছোট বেলায় খেলেছেন পর্তুগিজ তারকা। তাই ২০১৬ সালের শেষ দিকে লিসবনে হোটেল সিআর-৭ এর যাত্রা শুরু করবেন। আর ২০১৭ সালে স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদে যাত্রা শুরু হবে সিআর-৭ হোটেলের। একই বছর নিউইয়র্ক সিটিতে যাত্রা শুরু হবে রোনালদোর হোটেল ব্যবসা। সৌজন্যে : বাংলামেইল