Home » স্পোর্টস ট্যুরিজম » কীভাবে এত আয় রোনালদোর

কীভাবে এত আয় রোনালদোর

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো খবরটা অনেক আগেই নিশ্চয়ই পেয়েছেন। হয়তো মনঃক্ষুণ্নও হয়েছেন। কে জানে, এতক্ষণে হয়তো আবার ‘শীর্ষে’ ফেরার পথপরিকল্পনাও করে ফেলেছেন! ‘দ্বিতীয়’ শব্দটাতেই যে তাঁর বড্ড আপত্তি।

গত বছর দুয়েকে ফুটবল মাঠে প্রায় সব জায়গাতেই বিজয়ী হয়ে ফিরেছেন। লিগ, চ্যাম্পিয়নস লিগ, ইউরো, ব্যালন ডি’অর…শুধু কনফেডারেশনস কাপের সেমিফাইনালে চিলিয়ানদের ঝাঁজটা সইতে পারেননি রিয়াল মাদ্রিদ ও পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড। তা ফুটবল মাঠে যাঁর সর্বগ্রাসী দাপট, তিনিই কিনা শীর্ষস্থান হারালেন মাঠের বাইরের এক তালিকায়!

তালিকাটা কিসের? খেলা, গান, নাচ, লেখালেখি…ইউরোপের সব অঙ্গনে ধনী তারকাদের আয়ের! এত দিন সেখানেও এক নম্বরেই ছিলেন রোনালদো। কিন্তু ফোর্বস সাময়িকীর প্রকাশিত সর্বশেষ তালিকা অনুযায়ী, তাঁকে হটিয়ে শীর্ষে উঠে গেছেন ব্রিটিশ লেখিকা জে কে রাউলিং।

২০১৭ সালে হ্যারি পটার সিরিজের লেখিকার আয় দাঁড়াতে পারে ৯ কোটি ৫০ লাখ ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৯২৫ কোটি টাকা (১ ইউরো = ৯৭.২৯ টাকা ধরে)। রোনালদোর আয় রাউলিংয়ের চেয়ে ২০ লাখ ইউরো কম! ৮ কোটি ৮০ লাখ ইউরো আয় নিয়ে তালিকার তিনে ব্রিটিশ রক ব্যান্ড কোল্ডপ্লে।

তালিকায় লিওনেল মেসি কততম, জানতে ইচ্ছে করছে তো? তালিকাটাই তো ইউরোপের তারকাদের, সেখানে আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ডের থাকার প্রশ্নই আসে না। তবে ইউরোপ ছাড়িয়ে পুরো বিশ্বের তারকাদের তালিকায় বার্সেলোনার আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড আছেন ১৪ নম্বরে। সেখানে রোনালদো তাঁর ‘চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী’র চেয়ে ৯ ধাপ এগিয়ে পাঁচে।

তবে এখনো একটা জায়গায় ‘অপ্রতিদ্বন্দ্বী’ রোনালদো। কি ফুটবল, কি অন্য খেলা, কি ইউরোপ, কি বাকি বিশ্ব…খেলোয়াড়দের মধ্যে সবচেয়ে বেশি আয় ৩২ বছর বয়সী ফরোয়ার্ডেরই। কীভাবে এত আয় রোনালদোর, সেটিও জেনে নেওয়া যাক—

বেতনটা মন্দ নয়
গত নভেম্বরেই রিয়াল মাদ্রিদের সঙ্গে চুক্তি নবায়ন করেছেন রোনালদো। যেখানে তাঁর বেতন সপ্তাহে ৩ লাখ ৬৫ হাজার পাউন্ড (প্রায় ৪ লাখ ইউরো, ৩ কোটি ৯৭ লাখ টাকা)। ইউরোপে তাঁর চেয়ে বেশি বেতন শুধু দুজনেরই—বার্সেলোনার লিওনেল মেসি (সপ্তাহে ৫ লাখ পাউন্ড বা ৫ কোটি ৪৪ লাখ টাকা) ও নেইমার (৫ লাখ ৩৭ হাজার পাউন্ড, ৫ কোটি ৮৪ লাখ টাকা)।

বিজ্ঞাপনী চুক্তির খেল
তাঁর সবচেয়ে বড় স্পনসরশিপ চুক্তিটা নাইকির সঙ্গেই। রিয়ালের সঙ্গে চুক্তিটা নবায়নের কাছাকাছি সময়েই যুক্তরাষ্ট্রের ক্রীড়াসামগ্রী প্রস্তুতকারক ব্র্যান্ডের সঙ্গেও চুক্তি নবায়ন করেছেন রোনালদো। তবে এই চুক্তিটার একটা বিশেষত্ব আছে—এটি আজীবনের চুক্তি। যুক্তরাষ্ট্রের বাস্কেটবল কিংবদন্তি লেব্রন জেমসের পর নাইকির ইতিহাসে এটি দ্বিতীয় আজীবনের চুক্তি। রোনালদোর চুক্তিটির মূল্য? ১০০ কোটি ডলার! নাইকির বাইরে ট্যাগ হ্যয়ার, আরমানি, পোকারস্টার্স ও ক্যাস্ট্রলের সঙ্গেও চুক্তি আছে রোনালদোর।

বাণিজ্যে বসতে লক্ষ্মী
এত এত বাণিজ্যিক পণ্যের দূত তিনি, তাঁর নিজেরও একটা ব্র্যান্ড থাকবে না? তা হয়! ‘সিআরসেভেন’ ব্র্যান্ডটা চারদিকে ছড়িয়েও দিচ্ছেন রোনালদো। অন্তর্বাস দিয়ে শুরু, ‘পেস্তানা সিআরসেভেন’ নামে পর্তুগালে দুটি হোটেলও আছে। একটি লিসবনে, অন্যটি তাঁর জন্মশহর মাদেইরার ফুনচালে। গত বছরের শেষ দিকে মাদ্রিদে সিআরসেভেন ফিটনেস নামে একটা জিমও খুলেছেন।

সম্পত্তির হিসাব
তাঁর ব্যবস্থাপনা কোম্পানি ছাড়া এই তথ্য সঠিকভাবে কেউই দিতে পারবে না। তবে বেশির ভাগ সূত্রেরই হিসাব, রোনালদোর গাড়ি-বাড়ি-বিনিয়োগ…সব মিলিয়ে মোট সম্পত্তির পরিমাণ ২০-২৫ কোটি পাউন্ড। বাংলাদেশি টাকায়? চোখ কচলে নিন…২ হাজার ৫০০ কোটি টাকার মতো!

ইউরোপে সবচেয়ে বেশি আয়ে সেরা পাঁচ
পেশা, আয় (ইউরোয়)
১. জে কে রাউলিং, লেখিকা, ৯ কোটি ৫০ লাখ
২. ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, ফুটবলার, ৯ কোটি ৩০ লাখ
৩. কোল্ডপ্লে রক, ব্যান্ড, ৮ কোটি ৮০ লাখ
৪. অ্যাডেল, গায়িকা, ৬ কোটি ৯০ লাখ
৫. রজার ফেদেরার, টেনিস খেলোয়াড়, ৬ কোটি ৪০ লাখ

দানসত্র
শুধু আয় কেন, দাতব্য কাজে রোনালদোর দানও তো ঈর্ষণীয়। ২০১৫ সালে ‘ডুসামথিংগুড’ নামের প্রতিষ্ঠানের কাছ সবচেয়ে মহানুভব ক্রীড়াব্যক্তিত্ব স্বীকৃতিটা তো আর এমনি এমনি পাননি! কদিন আগেই নিজের সাধের ব্যালন ডি’অর ট্রফিগুলোর একটি ৬ লাখ পাউন্ডে বিক্রি করে দিয়েছেন সুবিধাবঞ্চিতদের জন্য অর্থ তুলতে। ২০১৬ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতার পর বোনাস হিসেবে পাওয়া ৬ লাখ ইউরোও দান করে দিয়েছিলেন। এর আগের বছর পর্তুগালে একটি ক্যানসার সেন্টারে দিয়েছিলেন ১ লাখ ৬৫ হাজার পাউন্ড।

রমরমা ফেসবুক-টুইটারেও
ফেসবুক, টুইটার ও ইনস্টাগ্রাম মিলিয়ে ২০ কোটিরও বেশি অনুসরণকারী রোনালদোর। খেলাধুলার স্পনসরশিপ বিশ্লেষণ প্রতিষ্ঠান ‘হুকইটে’র হিসাব, এত অনুসরণকারী পাওয়া প্রথম খেলোয়াড় তিনি। ফেসবুকে সবচেয়ে জনপ্রিয় অ্যাথলেট তিনি, অনুসরণকারী ১২ কোটি ২০ লাখ। মেসির অনুসরণকারী অনেক কম—৮ কোটি ৯০ লাখ। ইনস্টাগ্রামেও খেলোয়াড়দের মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় রোনালদো। অনুসরণকারী ১০ কোটি ৮০ লাখ।

সূত্র: ফোর্বস, গোলডটকম। সৌজন্যে: প্রথম আলো।